বৃদ্ধাশ্রমে থাকা মা কেঁদে কেঁদে বললেন ছে’লেদের সঙ্গে ঈদ করতে চাই

মা শব্দটি সব মানুষের কাছেই প্রিয়। জীবনের সবচেয়ে বড় শক্তি মায়ের দোয়া। পৃথিবীর বুকে আমা'দের একমাত্র নিরাপ'দ আশ্রয়স্থল “মা”। যত আবদার যত অ‘ভিযোগ সবই মায়ের কাছে। নাড়ী ছেড়া ধন সন্তানের জন্য ১০ মাস ১০ দিন শুধু নয়, মায়ের সারাটা জীবন উৎস্বর্গ করেও যেন মায়ের তৃ'প্ত ি নেই।

নতুন খবর হচ্ছে, আলতা বানু। বয়স ৭০ বছর। তিনি চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌর এলাকার ম’সজিদ পাড়ার বাসিন্দা ছিলেন। তার বিবাহিত জীবনে নিজের কোনো সন্তান নেই। স্বামী কতদিন আগে মা’রা গেছেন তা-ও বলতে চান না ক্ষো'ভে। কবে প্রায় ছয় বছর ধরে বৃ'দ্ধাশ্রমে রয়েছেন।

আলতা বানু জানান, স্বামী মা’রা যাওয়ার পর যা সম্পদ ছিল সবটুকু পালিত ছে’লেকে লিখে দেন। এরপর থেকে পালিত ছে’লে আর তার খোঁজ'খবর রাখেননি।

ফলে বাধ্য হয়ে আসতে হয় বৃ'দ্ধাশ্রমে।তিনি অঝোরে কেঁদে কেঁদে বলেন, ‘ছে’লেরা যদি আমাকে বাড়িতে নিয়ে যায়, তবে আমি রোজার ঈদ তাদের সঙ্গে করতে চাই।

Facebook Comments
Back to top button