অনেক সাধনার পর প্রথম সেঞ্চুরির মুখ দেখলেন শান্ত

দুর্দান্ত প্রতিভাবান ব্যাটসম্যান। বয়সভিত্তিক আর ঘরোয়া ক্রিকে'টে নিয়মিত পারফর্ম করেই জাতীয় দলে জায়গা করে নেন নাজমুল হোসেন শান্ত। কিন্তু প্রতিভার সাক্ষরটা আর রাখতে পারলেন কই? আন্তর্জাতিক ক্রিকে'টে টানা ব্য'র্থতা শান্তর সামর'্থ্যকে ফেলে দেয় প্রশ্নের মুখে।

অনেকেই টিপ্পনী কে'টে বলতে শুরু করেন-দৌড় ওই ঘরোয়া ক্রিকে'টেই, আন্তর্জাতিক ক্রিকেট এত সহজ না বাপু! কিন্তু একের পর এক ব্য'র্থতা আর সমালোচনার পরও নির্বাচকরা আস্থা হারাননি ২২ বছর বয়সী এই বাঁহাতির ওপর।

সুযোগ দিয়েই গেছেন। শান্ত কেবল সেই সুযোগগু'লো হেলায় ন'ষ্ট করে যাচ্ছিলেন। ক্যারিয়ারটা ক্রমেই ঢুকে যাচ্ছিল চোরাবালির ফাঁ'দে। ক্রিকেট বিশ্বে প্রতিভার স্ফুরন দেখিয়ে দলে আসা অনেকের হারিয়ে যাওয়ার নজির কম নয়। শান্তও কি সেই পথেই যাচ্ছেন? দুশ্চিন্তা ছিল সবারই। শান্তর নিজেরও নয় কী?

অবশেষে পাহাড়সমান বোঝাটা মাথা থেকে নামল তরুণ শান্তর। সব ব্য'র্থতা আর সমালোচনার জবাব দিতে পারলেন ব্যাট হাতেই। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আজ পাল্লেকেলে টেস্টের প্রথম দিনে পেলেন বহু আরাধ্য সেঞ্চুরির দেখা। শুধু টেস্ট ফরমেটেই নয়, যে কোনো ফরমেটের ক্রিকে'টে এটি শান্তর প্রথম সেঞ্চুরি।

২০১৭ সালের শুরুতে জাতীয় দলের সঙ্গে নিউজিল্যান্ড সফরে গিয়েছিলেন ব্যাকআপ খেলোয়াড় হিসেবে। কপালগু'ণে অভিষেক হয়ে যায় শান্তর। স্কোয়াডে একের পর এক চোটের হানায় দ্বিতীয় টেস্টের একাদশে জায়গা পান এই বাঁহাতি। দুই ইনিংসে করেছিলেন ১৮ আর ১২।

সেটা তো ছিল ব্যাকআপ হিসেবে জায়গা পাওয়া। টেস্ট দলে মূলত স্পেশালিস্ট ব্যাটসম্যান হিসেবে শান্ত সুযোগ পান ২০১৮ সালের নভেম্বরে। সিলেটে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সেই টেস্টেও খুব ভালো করতে পারেননি। দুই ইনিংসে করেন ৩ আর ১৫ রান।

এরপর সুযোগ পেয়েছেন নিয়মিতই। কিন্তু গত বছর ঢাকায় জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ৭১ রানের ইনিংস ছাড়া বলার মতো কিছুই করতে পারেননি। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সর্বশেষ টেস্ট সিরিজে তার ইনিংসগু'্লো ছিল-২৫, ০, ৪ আর ১১ রানের।

৬ টেস্ট শেষে গড় মাত্র ২১.৯০। হাফসেঞ্চুরি একটি। সর্বোচ্চ ৭১ রানের ইনিংসটিও দুর্বল জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ঘরের মাঠে। এমন পারফরম্যান্সের পর শান্তর সামর'্থ্য নিয়ে প্রশ্ন উঠাই স্বাভা'বিক। সেটা উঠেছেও।

কিন্তু নির্বাচকরা এবারও বাঁহাতি এই স্ট্রোক মেকারকে টপঅর্ডারে জায়গা দিয়েছেন। অবশেষে তাদের আস্থার প্রতিদানও দিলেন শান্ত। পাল্লেকেলে টেস্টের প্রথম দিনে দারুণ ব্যাটিং করছে বাংলাদেশ দল। যাতে বড় অবদান শান্তর।

একদম টেস্ট মেজাজের খেলা যাকে বলে। দেখেশুনে দলকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন তরুণ এই ব্যাটসম্যান। নিজের ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরিটি পূর্ণ করেছেন বাউন্ডারি হাঁকিয়েই। ২৩৫ বলে ১২ চার ১ ছক্কায় ১০২ রানে অ’পরাজিত আছেন শান্ত।

এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের সংগ্রহ ৭৪ ওভার শেষে ২ উইকে'টে ২৫২ রান। শান্তর সঙ্গে ৪৬ রান নিয়ে ব্যাট করছেন অধিনায়ক মুমিনুল হক। তামিম আউট হয়েছেন ৯০ করে।

Facebook Comments
Back to top button