বন্ধুকে শালা বলায় বন্ধুর বোনের সাথে জোর করে বিয়ে

শরণখোলায় করো’’নায় লকডাউন থাকার কারনে বন্ধু মহল দীর্ঘদিন মিলিত ‘'হতে পারেনি। গতকাল তারা এক জায়গায় মিলিত হয় অনেক দিন দেখা না হওয়ার কারনে মেজাজ খিটখিটে থাকে সকলের,তার ভিতর ঘটে এই বিপত্তি।

মজার ছলে বন্ধু মুন্না আরেক বন্ধুকে শালা বলে গা’লি দিলে বন্ধুমহল চরম রাগ হয় এবং তারা ওই বন্ধুকে শা’স্তি দেবার চিন্তা করে।বন্ধু মহল শরণখোলার কালা জাহাঙ্গীর নামে এক পাতি নেতার কাছে বিচার দেয়।

বিচারক সব শুনে ক্ষি’'প্ত হন, এবং মুন্নাকে জোরপূর্বক বন্ধুর বোন শায়লা কে বিয়ের জন্য প্রেসার দেন,মুন্না এবং বন্ধুর পরিবার বিদ্বাবোধ করলে পাতি নেকা তাদের গ্রাম ছেড়ে শহরে চলে যেতে নির্দেশ দেন, উপায় না পেয়ে বন্ধুর বোন কে বিয়ে করেন নাদিম!!

বি:দ্র: মুন্নার এই শালা বলা ছিলো পরিকল্পিত, দীর্ঘদিন যাব’ত ঔ বন্ধু বোনের সাথে প্রেম ছিলো মুন্নার কিন্তু করো’’নার কারনে মুন্নার চাকরি ‘আট'’কে যায়। যার কারনে বিয়ে হচ্ছিলোনা তাদের তাই বন্ধু মহল মিলে এই পরিকল্পনা করে। সকল চরিত্রই কাল্পনিক কারো সাথে মিলে গেলে মি’'ষ্টর শরণখোলা দায়ী থাকবেনা।।

Facebook Comments
Back to top button