শেষ হচ্ছে পাটগ্রামের মডেল মসজিদের নির্মাণকাজ, অপেক্ষায় মুসল্লিরা

লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজে'লার দৃ'ষ্টিনন্দন মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের নির্মাণকাজ প্রায় শেষ প্রান্তে। এর জন্য দিনরাত কাজ করে যাচ্ছেন নির্মাণ শ্রমিকরা। মুজিববর্ষ উপলক্ষে চলতি বছরের মা'র্চে মডেল মসজিদের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

পাটগ্রাম উপজে'লার মির্জার কোর্ট এলাকার লালমনিরহাট-পাটগ্রাম মহাসড়কের পাশে মডেল মসজিদটি নির্মাণ হচ্ছে। এর আদি গঠন তিনটি গম্বুজ ও একটি বিশাল মিনার স্থাপিত হচ্ছে। এমন মসজিদ পেয়ে ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা আনন্দিত। পাশাপাশি নারীদের ধর্মীয় শিক্ষার প্রসার ঘটবে বলেও মনে করছেন স্থানীয়রা।

জানা গেছে, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের একটি প্রকল্পের আওতায় দেশের বিভিন্ন জে'লা ও উপজে'লায় ৫৬০টি মডেল মসজিদ তৈরি করছে সরকার। এর মধ্যে চলতি বছরের মা'র্চের মধ্যে ৫০টি মডেল মসজিদ উদ্বোধন করবে গণপূর্ত। মডেল মসজিদে নামাজ পড়ার ব্যবস্থা ছাড়াও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র তৈরি করা হচ্ছে। জে'লা সদরে নির্মিত মসজিদগু'লো হচ্ছে চারতলা এবং উপজে'লায় হচ্ছে তিনতলা কমপ্লেক্স।

এর মধ্যে নারী ও পু’রুষের জন্য পৃথক অজুর স্থান, লাইব্রেরি ও গবেষণা কেন্দ্র, শিশু শিক্ষা, বিদেশি পর্যটকদের আবাসন, অতিথিশালা, হজ যাত্রীদের নিবন্ধন কেন্দ্র ও ইমাম'দের প্র'শিক্ষণ দেয়ার ব্যবস্থা থাকবে। জমির ধরনভেদে প্রতিটি মসজিদ নির্মাণের জন্য ব্যয় হচ্ছে ১২ থেকে ১৬ কোটি টাকা। ৫৬০টি মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের মধ্যে ৪০০টির কাজ শুরু হয়েছে। বাকি ১৫৫টি মসজিদ নির্মাণের জন্য ভূমি অধিগ্রহণের কাজ শেষ হয়েছে। পাঁচটি মসজিদের ভূমি নিয়ে আ'দালতে মাম'লা থাকায় অধিগ্রহণ শেষ করতে পারেনি গণপূর্ত।

সরেজমিনে ঘুরে জানা গেছে, মসজিদ নির্মাণে প্রতিদিন ১২০ জন শ্রমিক কাজ করছেন। গম্বুজের উপরের অংশ এবং মা'র্বেল টাইলসের কাজ কিছুটা বাকি।

নির্মাণ শ্রমিক মিজান জানান, এ মাসেই কাজ শেষ হবে শুধু মা'রবেল টাইলসের কাজ বাকি রয়েছে।

স্থানীয় শ্রমিক বিপ্লব (৩০) বলেন, আমা'দের এলাকায় ভালো একটি মসজিদ হচ্ছে। এটা শেখ হাসিনার উপহার। এই মসজিদটা হবে দেখার মতো। আমর'া সবাই নামাজ আ'দায় করতে পারব।

মির্জার কোট রহিম উদ্দিন দরবেশ (র.) হাফিজিয়া মা'দরাসার শিক্ষক মো. নবিয়ার রহমান বলেন, আমর'া উন্নতমানে মসজিদ পেয়েছি। এ মসজিদে নামাজ আ'দায় করে আল্লাহর দরবারে দোয়া করব।

ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান মেসার্স ইঞ্জিনিয়ার বিল্ডার্সের সাইড ইঞ্জিনিয়ার নাঈমুর রহমান বলেন, মসজিদের নির্মাণকাজ দ্রুত চলছে। কাজ প্রায় শেষের পথে। কাজের মান ঠিক রেখে বাকি কাজগু'লো এ মাসের মধ্যে শেষ হবে আশা করি।

এ বি'ষয়ে পাটগ্রাম উপজে'লার ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ফিল্ড সুপারভাইজার মমিনুর রহমান বলেন, এই মডেল মসজিদ নির্মাণকাজ দ্রুত চলছে। আগামী মা'র্চ মাসে এই মসজিদটি উদ্বোধনের কথা রয়েছে।

উল্লেখ্য, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের সুখী, সমৃ''দ্ধ ও উন্নত বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয়ে ২০১৪ সালের নির্বাচনী ইশতেহারে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রতিটি জে'লা ও উপজে'লায় একটি করে উন্নত মসজিদ নির্মাণের প্রতিশ্রুতি দেন।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে ২০১৫ সালের ফেব্রুয়ারিতে বাংলাদেশের প্রতিটি জে'লা ও উপজে'লায় একটি করে ৫৬০টি মডেল মসজিদ এবং ইসলামিক সংস্কৃতি কেন্দ্র স্থাপনের (১ম সংশোধিত) অনুমোদন পায়। ২০১৭ এপ্রিল থেকে ডিসেম্বর ২০২০ পর্যন্ত মেয়াদে এ প্রকল্পের জন্য ৮ হাজার ৭২২ কোটি টাকা ব্যয় ধ’রা হয়।

এরই ধা'রাবাহিকতায় লালমনিরহাট জে'লায় প্রথমে পাটগ্রাম উপজে'লায় মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে প্রায় ১১ কোটি ৩৭ লাখ ৮০ হাজার ১২৪ দশমিক ৫০৪ টাকা ব্যয়ে নির্মাণকাজ চলছে। বাকি চারটি উপজে'লায় মডেল মসজিদের কাজ চলমান।

Facebook Comments
Back to top button